HeaderDesktopLD
HeaderMobile

বিয়ের পরে তাঁদের প্রথম পুজো, দীপঙ্করকে চিতলমাছের মুইঠ্যা রেঁধে খাওয়াবেন দোলন

0 50,346

তাঁদের বিয়ে নিয়ে বিস্তর চর্চা হয়েছিল ইন্ডাস্ট্রি জুড়ে। সোশ্যাল মিডিয়াও বেশ মেতে উঠেছিল অসমবয়সি বিয়ের খবরে। তবে অভিনন্দন ও শুভেচ্ছাও কিছু কম ছিল না। সেই চর্চিত বিয়ের পরে এবার প্রথম পুজো দোলন রায় ও দীপঙ্কর দে-র। তবে প্রথম পুজো ঘরে বসেই কাটবে। দোলনের হাতের চিতল মাছের মুইঠ্যা ছাড়া আর কী স্পেশ্যাল হতে পারে, তা এখনও জানেন না টিটো অর্থাৎ দীপঙ্কর। দোলন-দীপঙ্করের সঙ্গে পুজোর গল্প করলেন শুভদীপ বন্দ্যোপাধ্যায়

দীর্ঘ কয়েক বছর লিভ-ইন করার পরে এবছর বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হয়ে নবদম্পতি হয়েছেন দোলন দীপঙ্কর। এখন একটি চ্যানেলের আসন্ন সিরিয়াল ‘জীবন সাথী’-র সেটে একসঙ্গেই শ্যুটিং করছেন দোলন ও দীপঙ্কর। অনেকদিন পর দীপঙ্কর দে কাজে ফিরেছেন আবার এই সিরিয়ালে।

পুজোয় এই জুটি কী করছেন এবার?

এবার পুজোয় নবরাত্রি করব ভাল করে। সিরিয়াসলি বলছি! এটা কোনও পুজো আদৌ? আমাদের বিয়ের পর প্রথম পুজো এটা। সবার যা কাটবে আমাদেরও তাই। কিছুই প্ল্যান নেই এবার। কোথাও তো যাওয়া নেই, ইভেন্টগুলোও নেই। তবে একবার মাকে দর্শন করতে তো নিশ্চয়ই যাব।

লকডাউন, করোনা, ঘরের কাজে সাহায্যকারিণীর না আসা একাই সংসারের সব ঝক্কি পোহাতে হচ্ছে আমাকে। নিজেই রোজ রান্না করা থেকে ঘর পরিষ্কার, সঙ্গে দীপঙ্করের খেয়াল রাখা—এই করেই দিন কাটছে। মনে হচ্ছে সারা লকডাউন জুড়ে যেন রান্নাই করলাম। পুজোয় আর কত রান্না করব! এসব করে শ্যুটিং করাও ভয়ংকর চাপের। তবে একটা ভাল দিকও আছে। এই লকডাউন আমাদের দুজনকে আরও কাছাকাছি থাকার সুযোগ করে দিয়েছে।

একেবারে গোপনেই ৭৫-এর দীপঙ্করকে বিয়ে করে ফেললেন ৪৯-এর দোলন - Kolkata24x7 | Read Latest Bengali News, Breaking News in Bangla from West Bengal's Leading online Newspaper

দীপঙ্কর বেশ রসিক, আমুদে মানুষ। তিনি বাড়িতে থাকলেও পুজো আমোদ করেই কাটাতে চান। খাবার পাতে আবার নন ভেজই বেশি পছন্দ দীপঙ্করের। আগে তো ভে স্পর্শই করতেন না, এখন স্বাস্থ্যের কথা ভেবে তাও খান। দোলন বললেন, “আমি খুব অকেশানালি কন্টিনেন্টাল করি। তবে হ্যাঁ, স্পাইসি খেতেই ও বেশি পছন্দ করে। আমার হাতের রান্নার মধ্যে ওঁর সবচেয়ে প্রিয় চিতল মাছের মুইঠ্যা। সেটাই ওঁকে হয়তো এবার পুজোতে খাওয়াব। এছাড়াও মাটন খেতেও খুব ভালোবাসে। নিজে মাটন রাঁধতেও খুব ভালবাসে।”

পুজোয় না বেরোলেও দীপঙ্কর-দোলনের আবাসনের মধ্যেই পুজো হয়।

বিয়ের পরদিনই হাসপাতালে দীপঙ্কর দে

দোলনের কথায়, আমাদের কমপ্লেক্সে বেশ ভালই বড় পুজোই হয়। সেখানে অঞ্জলি দেওয়া, বরণ করতে যাই। তবে আমার বাপের বাড়ির পাড়ার পুজোতেও জয়েন করতাম। এ বছর যেতে পারব কিনা বুঝতে পারছিনা। যাদবপুরে আমাদের পাড়ার মেয়েরা সব আসে তো সবাই অপেক্ষা করে থাকে সকলের সঙ্গে সকলের দেখা হবে। পুজোয় এমনিতেও সেভাবে প্রকাশ্যে মণ্ডপে মণ্ডপে ঢুকে ঠাকুর দেখতে পারি না।

আমরা দুজনে গাড়িতে উঠে সারা কলকাতা ঘুরে নিলাম ব্যস। বাইরে কোথাও একটা খেয়ে নিলাম। প্ল্যান থাকে কোথাও একটা খেতে যাবো। সেটাই করতাম এবারও। সেটা মিস করব। বাইরে খাওয়া তো সম্ভব নয়। আর ওঁকে বাইরে খেতেও দেব না।

Dolon Roy Wiki, Biography, Age, Height, Weight, house, Family, movies, Affairs, and more - Filmy Journey - Movie Lists, Tips and Explainers

আগে আমাদের যাত্রার শো যখন থাকত, সেগুলো দশমীর পর থেকে শিডিউল থাকত। একবার খালি নবমীতে একটা প্রত্যন্ত গ্রামে শো ছিল। সে বার খুব মিস করেছিলাম কলকাতার পুজো। তার পর থেকে পুজোয় কাজ, শো রাখি না আমরা।

You might also like

Leave A Reply

Your email address will not be published.